ইংল্যান্ডের দখলেই ওয়ানডে ক্রিকেটের দলীয় সর্বোচ্চ তিনটি রানের রেকর্ড

ইংল্যান্ডের দখলেই ওয়ানডে ক্রিকেটের দলীয় সর্বোচ্চ তিনটি রানের রেকর্ড: ইংল্যান্ড ক্রিকেট দল, বর্তমান ওয়ানডে ক্রিকেটের বিশ্বচ্যাম্পিয়ন। ২০১৮ সালে নিজের মাটিতে অনুষ্ঠিত ক্রিকেট বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়ন হয় ইংল্যান্ড। এরপর, ক্রিকেটের সীমিত সংস্করণের ফরমেট যেনো এক প্রকার দাপিয়েই বেড়াচ্ছে ইংল্যান্ড। ২০১৫ ক্রিকেট বিশ্বকাপের পর এক বদলে যাওয়া ইংল্যান্ড দলকে দেখতে পায় ক্রিকেট বিশ্ব। এরপরই, টানা মোট ৩ বার আন্তর্জাতিক ওয়ানডে ক্রিকেটে ৪০০ রানের গন্ডি পেরোয় ইংল্যান্ড। যে তিনটি দলীয় স্কোর , আন্তর্জাতিক ওয়ানডে ক্রিকেটে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ দলীয় সংগ্রহ।

২০১৬ সালে ইংল্যান্ড ক্রিকেট দল পাকিস্তানের বিপক্ষে ৪৪৪ রান করে। যা তৎকালীন, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সর্বোচ্চ দলীয় স্কোর ছিলো।

ইংল্যান্ডের দখলেই ওয়ানডে ক্রিকেটের দলীয় সর্বোচ্চ তিনটি রানের রেকর্ড
পাকিস্তানের বিপক্ষে ৪৪৪ রানের স্কোরকার্ড

[ ইংল্যান্ডের দখলেই ওয়ানডে ক্রিকেটের দলীয় সর্বোচ্চ তিনটি রানের রেকর্ড ]

নটিংহামে টস জিতে ব্যাট করতে নামে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। দলীয় ৩৩ রানে জেসন রয় প্যাভিলিয়নে ফিরলেও। আরেক ওপেনার অ্যালেক্স হেলস এবং জো রুট মিলে গড়েন ২৪৮ রানের এক অনবদ্য জুটি। পার্টনারশিপটিতে জো রুট অ্যাঙ্করিং ভূমিকা পালন করলেও, আগ্রাসীরূপে মেজাজে পাকিস্তানি বোলারদের তুলোধুনো করছিলেন ইংলিশ ব্যাটার অয়ালেক্স হেলস।

হেলস ১২২ বলে ১৭১ রানের ইনিংস খেলে সাজঘরে ফিরলেও জোস বাটলার এবং অধিনায়ক ওয়েন মরগান থামেননি। জোস বাটলারে ৫১ বলে ৯০ এবং ওয়েন মরগান ২৭ বলে ৫৭ রান করে ইংল্যান্ডকে তৎকালীন পুরুষ ক্রিকেটে্র সর্বোচ্চ ৪৪৪ রানের বন্দরে পৌছে নিয়ে যান। সেদিন, পাকিস্তানের মোহাম্মদ আমির, ওয়াহাব রিয়াজ এবং হাসান আলী সমৃদ্ধ অভিজ্ঞ বোলিং অ্যাটাককে গুড়িয়ে দিয়েছিলো ইংলিশ ব্যাটারেরা।

৪৪৫ রানের এক প্রকার অসম্ভব লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে দলীয় ২৭৫ রানেই গুঁড়িয়ে যায় পাকিস্তানের ইনিংস এবং ইংল্যান্ড জয়লাভ করে ১৬৯ রানে।

এর দুই বছর পর ইংল্যান্ড অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে নিজেদের রেকর্ড নিজেরাই ভাঙে।

অস্ট্রেলিয়াকে পেয়ে ওয়ানডে ক্রিকেটের ইতিহাসে নতুন রেকর্ড তৈরি করলো ইংল্যান্ড। কল্পনাকেও হার মানিয়ে যায়, অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এমন ব্যাটিংই করেছে ইংলিশ ব্যাটসম্যানরা।

ইংল্যান্ডের দখলেই ওয়ানডে ক্রিকেটের দলীয় সর্বোচ্চ তিনটি রানের রেকর্ড
অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ইংল্যান্ডের স্কোরকার্ড

ইংল্যান্ডের দখলেই ওয়ানডে ক্রিকেটের দলীয় সর্বোচ্চ তিনটি রানের রেকর্ড

ট্রেন্টব্রিজে দুই বছর আগে নিজেদের গড়া সর্বোচ্চ ৪৪৪ রানের রেকর্ড ভেঙে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে মাত্র ৬ উইকেট হারিয়ে ৪৮১ রানের বিশাল স্কোর গড়ে ইংল্যান্ড। জবাবে অস্ট্রেলিয়া ৩৭ ওভারে অলআউট মাত্র ২৩৯ রানে। ফলে, নিজেদের ইতিহাসে ২৪২ রানের সবচেয়ে বড় জয় তুলে নিল ইংল্যান্ড।

ওয়ানডে ক্রিকেটের ইতিহাসে এই প্রথম কোনো দল দলীয় স্কোর ৪৫০ রান পার করলো। শুধু ৪৫০ রান পার করাই নয়, স্কোরকে পার করে দিলো পৌনে পাঁচশ’। থামলো গিয়ে ৪৮১ রানে।

ট্রেন্টব্রিজে টস জিতে ইংল্যান্ডকে ব্যাট করার আমন্ত্রণ জানায় অসি অধিানয়ক টিম পেইন। ব্যাট করতে নেমে দুই ওপেনার জেসন রয় এবং জনি বেয়ারেস্ট ঝড়ো সূচনা এনে দেন ইংল্যান্ডকে। ৬১ বলে ৮২ রান করে রানআউট হওয়ার আগে ১৯.৩ ওভারে ১৫৯ রানের জুটি গড়েন জেসন রয়। ৭টি বাউন্ডারির সঙ্গে ছক্কা মারেন ৪টি।

এরপর জনি বেয়ারেস্ট এবং আলেক্স হেলস মিলে গড়ে তোলে বিশাল এক জুটি। ১৫১ রান এ আসে এ দু’জনের সম্মিলিত ব্যাট থেকে। ৯২ বলে ১৩৯ রান করে আউট হন বেয়ারেস্ট। ১৫টি বাউন্ডারির সঙ্গে ছক্কা মারেন ৫টি। ৯২ বলে ১৪৭ রান করেন আলেক্স হেলস। ১৬টি বাউন্ডারির সঙ্গে তিনিও মারেন ৫টি ছক্কার মার।

ইংল্যান্ডের দখলেই ওয়ানডে ক্রিকেটের দলীয় সর্বোচ্চ তিনটি রানের রেকর্ড
নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে ম্যাচে ইংল্যান্ডের ব্যাটাররা

শেষ দিকে ব্যাট করতে নেমে ঝড় তোলেন অধিনায়ক ইয়ন মরগ্যান। ইংল্যান্ডের পক্ষে দ্রুততম হাফ সেঞ্চুরি করেন তিনি ২১ বলে। শেষ পর্যন্ত ৩০ বল তিনি ৬৭ রান করে আউট হন। বাটলার এবং মঈন আলি দু’জনই আউট হন ১১ রান করে। শেষ পর্যন্ত ৬ উইকেট হারিয়ে ইংল্যান্ডের স্কোর দাঁড়ায় ৪৮১ রানে।

জবাব দিতে নেমে মাত্র ৩৭ ওভারেই ২৩৯ রান তুলতেই অলআউট অস্ট্রেলিয়া এবং ২৪২ রানের এক বিশাল জয় পায় ইংল্যান্ড। 

এবার, নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে নিজেদের করা রেকর্ড নিজেরাই ভাঙলো ইংলিশরা।

(শুক্রবার) অ্যামস্টেলভিনে নিজেদেরই সেই রেকর্ড ভেঙে ফেলেছে ইংল্যান্ড। নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে তারা তুলেছে ৪ উইকেটে ৪৯৮। এটিই এখন নতুন বিশ্বরেকর্ড।

শুধু দলীয় সংগ্রহের নয়, এই ম্যাচে একগাদা রেকর্ড গড়েছেন ইংল্যান্ডের ব্যাটাররা। এক ম্যাচে তিনজন করেছেন সেঞ্চুরি। তারা হলেনফিল সল্ট, ডেভিড মালান আর জস বাটলার। ওয়ানডেতে ইংল্যান্ডের তিন ব্যাটারের সেঞ্চুরি করার ঘটনা এবারই প্রথম।

টস জিতে ইংলিশদের ব্যাটিংয়ে পাঠানোই যেন কাল হয় নেদারল্যান্ডসের। শুরুটা অবশ্য ভালোই ছিল। ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারেই জেসন রয় () সাজঘরের পথ ধরেন। ইংল্যান্ডের বোর্ডে তখন মাত্র ১ রান। কে জানতো, ডাচদের সামনে এমন দুঃস্বপ্ন অপেক্ষা করছে!

দ্বিতীয় উইকেটে ডেভিড মালান আর ফিল সল্ট গড়েন ১৭৮ বলে ২২২ রানের বিশাল জুটি। মালান আর সল্টদুজনই পেয়েছেন ওয়ানডেতে তাদের প্রথম সেঞ্চুরি।

৯৩ বলে ১৪ বাউন্ডারি আর ৩ ছক্কায় ১২২ রানের ইনিংস খেলে আউট হন সল্ট। ১০৯ বলে ৯ চার আর ৩ ছক্কায় ডেভিড মালান করেন ১২৫। এরপর, জোস বাটলারের ৭০ বলে ১৬২ এবং লিয়াম লিভিংস্টোনের ২২ বলে ৬৬ রানের দানবীয় দুই ইনিংসের উপর ভিত্তি করে ৪৯৮ রান করে এক নতুন মাইলফলক স্পর্শ করে ইংল্যান্ড। 

 

মন্তব্য করুন