ফিরে দেখা , বিপিএল ২০২২ [ BPL 2022 ]

ফিরে দেখা , বিপিএল ২০২২ [ BPL 2022 ]

বিপিএল ২০২২ এর ফাইনালে , শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে ফরচুন বরিশালকে ১ রানে হারিয়ে তৃতীয়বারের মতো বিপিএলের শিরোপা নিজেদের ঘরে তুললো কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। তবে, পূর্বের বিপিএলের আসরগুলোর তুলনায় এবারের বিপিএলে কিছুটা কমতি ছিলো, যা নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন অনেকেই। অনেক আলোচনা, সমালোচনার পর মাঠে গড়ায় এবারের বিপিএল।

ফিরে দেখা , বিপিএল ২০২২
উইল জ্যাকস

এবারের বিপিএলের এক অন্যতম সমালোচনার জায়গা ছিলো ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম বা ডিআরএস সিস্টেম না থাকা। বর্তমান , আধুনিক ক্রিকেট ডিআরএস ছাড়া যেখানে কল্পনা করাই অসম্ভব , সে তুলনায় বিপিএলের মতো এতো বড় টুর্নামেন্টে ছিলো না ডিআরএসের ব্যবস্থা। এছাড়াও, পুরো টুর্নামেন্ট জুড়ে নিম্নমানের আম্পায়ারিং, ডুবিয়েছে খেলার মানকে।

[ ফিরে দেখা , বিপিএল ২০২২ ]

তবে, আগেরবারের বিপিএল গুলোর তুলনায় এবারের বিপিএলে উত্তেজনা কিংবা বিদেশি সুপাস্টার খেলোয়াড়দের উপস্থিতি ছিল কম যা, এবারের বিপিএলকে গেলোবারের বিপিএল আসরগুলোর তুলনায় করেছে খানিকটা ম্লান।এবারই প্রথমবার , বিপিএলের ১টি দলে মোট ৩ দল বিদেশি খেলোয়াড় ম্যাচ খেলার সুযোগ পায় যা গেলোবারের আসরগুলোর তুলনায় সবচেয়ে কম।

এবারের বিপিএলে ব্যাটারদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি রান করেছেন চট্গ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের উইল জ্যাকস। তিনি ১১ ম্যাচে ৪১.৪০ গড়ে এবং ১৫৫.০৫ স্ট্রাইক রেটে ৪১৪ রান করেন। যেখানে ছিলো ৪টি অর্ধশতক।

ফিরে দেখা , বিপিএল ২০২২
অ্যান্ড্রি ফ্লেচার

ব্যাটারদের মধ্যে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রান করেছেন খুলনা টাইগার্সের অ্যান্ড্রি ফ্লেচার। ফ্লেচার ১১ ম্যাচে ৫৮.৫৭ গড় এবং ১৩৮.৯৭ স্ট্রাইক রেটে ৪১০ রান করেন। ফ্লেচার এবারের আসরে ৩টি অর্ধশতক সহ ১টি সেঞ্চুরিও করেছেন।

এবারের বিপিএলে বাংলাদেশিদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি রান করেছেন মিনিস্টার গ্রুপ ঢাকার তামিম ইকবাল। তিনি এবারের বিপিএলের তৃতীয় সর্বোচ্চ রান স্কোরার। পুরো বিপিএলে তামিম ৯ ম্যাচে ৫৮.১৪ গড় এবং  ১৩২.৫৭ স্ট্রাইক রেটে ৪০৭ রান করেন যেখানে, ১টি সেঞ্চুরি এবং ৪টি ফিফটি ছিল।

তার দল মিনিস্টার গ্রুপ ঢাকা প্লে অফে কোয়ালিফাই না করতে পারায় টুর্নামেন্টের বাকি দুই সর্বোচ্চ রান স্কোরার থেকে ২ ম্যাচ কম খেলেছেন তামিম ইকবাল। তা না হলে হয়ত, এবারের বিপিলের সর্বোচ্চ রানের তালিকায় তামিম ইকবালের নামই থাকত সবার উপরে।

ফিরে দেখা , বিপিএল ২০২২
তামিম ইকবাল

এবারের বিপিএলে সবচেয়ে বেশি উইকেট নিয়েছেন বাংলাদেশের পেস বোলিং সেনসেশন, মোস্তাফিজুর রহমান। মোস্তাফিজ ১১ ম্যাচে ৬.৬২ ইকোনোমি রেটে মোট ১৯টি উইকেট নিয়েছেন। মোস্তাফিজুর রহমানের পরে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি হিসেবে রয়েছেন ফরচুন বরিশালে ডোয়েন ব্রাভো।

সর্বোচ্চ উইকেট শিকারির তালিকায় শীর্ষ পাঁচে একমাত্র বিদেশি তিনি। তিনি ১০ ম্যাচে ৭.৭৮ স্ট্রাইক রেটে মোট ১৮টি উইকেট নিয়েছেন। এরপরই তালিকার তৃতীয় স্থানে রয়েছে ফরচুন বরিশাল অধিনায়ক, সাকিব আল হাসান। সাকিব ১১ ম্যাচে মাত্র ৫.৩৬ ইকোনোমি রেটে মোট ১৬টি উইকেট নিয়েছেন।

এবারের বিপিএলের টুর্নামেন্ট    সেরা হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন , ফরচুন বরিশালের অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। এবারের বিপিএলে সাকিবের অলরাউন্ড নৈপুণ্যের কারণে তিনি এবারের ম্যান অব দ্য সিরিজ নির্বাচিত হন।

ফিরে দেখা , বিপিএল ২০২২
সাকিব আল হাসান

ব্যাটে-বলে পুরো টুর্নামেন্টে সাকিব ছিলেন দুর্দান্ত। এমনকি টানা পাঁচ ম্যাচে সেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার জিতে নজিরও গড়েছেন। তবে, নিজের ব্যাক্তিগত পারফর্মেন্সের মতো দলের পারফর্মেন্সের শেষটা রাঙাতে পারেননি সাকিব।[ সাকিব আল হাসানের নেতৃত্বাধীন ফরচুন বরিশাল শিরোপা জিততে পারেনি। ফাইনালে হেরেছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানের কাছে। তবে টুর্নামেন্টের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন সাকিবই।

শুক্রবার, বিপিএলের অষ্টম আসরের ফাইনালে সাকিবের নেতৃত্বাধীন বরিশালকে ১ রানে হারায় ইমরুল কায়েস নেতৃত্বাধীন  কুমিল্লা। ১৫২ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ৮ উইকেটে ১৫০ রান করতে পারে বরিশাল, যার কারণে ১ রানে জয় পেয়ে টুর্নামেন্ট চ্যাম্পিয়ন হয় কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স।

সাকিব ব্যাট হাতে ২৮৪ রানের পাশাপাশি ১৬ উইকেট দখল করে টুর্নামেন্ট সেরা হন। প্রতিযোগিতার আট আসরে এই নিয়ে চতুর্থবার টুর্নামেন্ট সেরা হলেন তিনি।এবারের আসরে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকের তালিকায় সাকিবের অবস্থান ষষ্ঠ। সর্বোচ্চ উইকেট শিকারির তালিকায় এই বাঁহাতি রয়েছেন তৃতীয় স্থানে।ব্যাট হাতেও তিনি ১৪৪.১৬ স্ট্রাইক রেটে ব্যাটিং করেছেন।

এবারের বিপিএলে, উইকেটকিপার ব্যাটারদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি রান করেছেন আনামুল হক বিজয়। বিজয় ৯ ম্যাচে ৩১.১১ গড়ে ২৮০ রান করেছেন। বিজয় পুরো টুর্নামেন্ট জুড়ে ১২১.৭৩ স্ট্রাইক রেটে ব্যাট করেছেন।

এছাড়া, পুরো টুর্নামেন্টে কমপক্ষে ২০০ রান করা এমন উইকেট কিপার ব্যাটারদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি স্ট্রাইক রেটে ব্যাট করেছেন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স উইকেটকিপার ব্যাটার লিটন দাস। পুরো টুর্নামেন্ট জুড়ে লিটন দাস মোট ৯ ম্যাচে ২৩.২২ গড়ে মোট ২০৯ রান করেন যেখানে রয়েছে মাত্র ১টি ফিফটি।

এবারের , বিপিএলে ব্যাটারদের মধ্যে বরিশালের মুনিম শাহরিয়ার ছাড়্রা তেমন কোনো দেশীয় উঠতি তারকার দেখা যায়নি। এছাড়া, বোলারদের মধ্যে কুমিল্লার বাহাতি স্পিনার তানভীর ইসলাম এবং চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের মৃত্যুঞ্জয় চৌধুরী ছিলেন অন্যতম। এবারের আসরের একমাত্র হ্যাট্রিকটিও করেন, মৃত্যুঞ্জয় চৌধুরী।

 

আরও দেখুন:

মন্তব্য করুন